করোনাকালে মা হয়েছেন? সুস্থ থাকার ৭ টি উপায়ঃ

করোনাকালে মা হয়েছেন? সুস্থ থাকার ৭ টি উপায়ঃ

(আনুমানিক পড়ার সময় ১ মিনিট ৩০ সেকেন্ড)

করোনাভাইরাসের এ সময়ে অনেক শিশুর জন্ম হচ্ছে। এ সময় মা ও শিশুর স্বাস্থ্যের প্রতি নিতে হবে বিশেষ যত্ন।

বিশেষ করে যারা অসুস্থ, গর্ভবতী বা সদ্য মা হয়েছেন তাদের প্রতি গুরুত্ব দিতে হবে সবচেয়ে বেশি।

সন্তান জন্মানোর পর মায়েদের শরীর অনেকটাই দুর্বল হয়ে যায়। সেই দুর্বলতা কাটিয়ে তুলতে খেতে হবে পুষ্টিকর খাবার।

আসুন জেনে নিই সুস্থ থাকতে এ সময় মায়েরা কী খাবেন-

১. মায়েদের জন্য পুষ্টির পাওয়ার হাউস হলো স্যালমন মাছ। এই মাছ শরীরে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াবে। স্যালমন ওমেগা ৩ ফ্যাটি অ্যাসিডসমৃদ্ধ হওয়ায় এটি মস্তিষ্কের বিকাশে, দৃষ্টিশক্তি বৃদ্ধিতে এবং শরীরকে সুস্থ রাখবে।

২. সদ্য মায়েদের সুস্থতার জন্য সবুজ শাকসবজি খাওয়া খুবই গুরুত্বপূর্ণ। দুর্বলতা কাটিয়ে উঠতে এবং ইমিউন সিস্টেমকে শক্তিশালী করতে প্রতিদিনের খাবারের তালিকায় রাখুন শাকসবজি। খেতে পারেন ফুলকপি, ব্রকলি, পালংশাক, মেথি শাক।

৩. খাদ্যতালিকায় রাখতে পারেন বিভিন্ন ধরনের ডাল। ডালে প্রয়োজনীয় প্রোটিন, ফাইবার, ভিটামিন এবং খনিজ থাকার কারণে তা শরীরকে সুস্থ রাখে ও হজম ক্ষমতা বাড়ায়। ডাল শরীরে ফ্যাট জমা হতে বাধা দেয়।

৪. খেতে হবে দুধ ও দুগ্ধজাত খাবার। মায়ের ক্যালসিয়ামের ঘাটতি পূরণ করবে দুধ ও দুধজাত খাবার। দুধ ও দই খেতে তা হাড়ের স্বাস্থ্যের উন্নতি করতে, হজম শক্তি বাড়ায় এবং অন্ত্রের সমস্যা দূর।

৫. প্রোটিনের উৎস হচ্চে ডিম। শরীরে প্রতিদিনের প্রোটিনের চাহিদা পূরণ করবে ডিমে। এতে থাকে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন, মিনারেলস ও প্রোটিন, যা শরীরকে সুস্থ রাখতে এবং রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়।

৬. খেতে পারেন রসুন। রসুনে অ্যান্টিভাইরাল এবং অ্যান্টিব্যাক্টেরিয়াল বৈশিষ্ট্য রয়েছে, যা শরীরে শ্বেত রক্ত কোষের উৎপাদন করতে সাহায্য করে ও অনাক্রম্যতা বাড়ানোর জন্য খুবই উপকারী।

৭. হলুদে অ্যান্টি-ইনফ্ল্যামেটরি, অ্যান্টিসেপটিক এবং অ্যান্টিব্যাক্টেরিয়াল উপাদান রয়েছে, যা রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানো ও শরীরে শক্তি বৃদ্ধি করে। তাই ঘুমাতে যাওয়ার আগে দুধের সঙ্গে হলুদ মিশিয়ে খান। সকালে হাফ চা চামচ মধুর সঙ্গে অল্প একটু কাঁচা হলুদের টুকরোও খেতে পারেন।

সুত্রঃ যুগান্তর। লেখক: গাইনি কনসালট্যান্ট, ডা. সোনিয়া সিদ্দিকা, গণস্বাস্থ্য কেন্দ্র। 

Leave a Reply

×

Cart